ওসাসুনাকে হারিয়ে আতলেতিকোর সঙ্গে ব্যবধান কমাল বার্সা

ওসাসুনাকে হারিয়ে আতলেতিকোর সঙ্গে ব্যবধান কমাল বার্সা

স্পোর্টস ডেস্ক, মানবতারকণ্ঠ:
ছন্দে থাকা বার্সেলোনা পেরিয়ে গেল নিজেদের আরেকটি কঠিন বাধা। সামনে থেকে দলকে নেতৃত্ব দিলেন লিওনেল মেসি। অবদান রাখলেন জর্দি আলবা ও ইলাইশ মোরিবার দুটি গোলে। ওসাসুনাকে হারিয়ে আতলেতিকো মাদ্রিদের সঙ্গে ব্যবধান কমাল বার্সেলোনা।

লা লিগার ম্যাচে রোববার ২-০ গোলে জিতেছে রোনাল্ড কুমানের দল। প্রতিপক্ষের মাঠে লিগে এ নিয়ে টানা অষ্টম জয় পেল তারা।

গতবার ওসাসুনার মাঠে ড্র করার পর ঘরের মাঠে হেরেছিল বার্সেলোনা। এবার জিতল দুই ম্যাচেই। প্রথম দেখায় ঘরের মাঠে জিতেছিল ৪-০ গোলে।

দ্বিতীয় মিনিটে দূর পাল্লার শটে মার্ক-আন্ড্রে টের স্টেগেনের পরীক্ষা নেন ইয়োনাথান কায়েরি। বেশ কিছুটা এগিয়ে থাকা বার্সেলোনা গোলরক্ষক কোনোমতে পিছিয়ে গিয়ে বলের নিয়ন্ত্রণ নেন।

চতুর্দশ মিনিটে ডি বক্সের বাইরে থেকে বারহার শট কর্নারের বিনিময়ে ঠেকান টের স্টেগেন।

১৯তম মিনিটে ডি বক্সের বাইরে মেসিকে ফাউল করায় গোলরক্ষককে লাল কার্ড দেখান রেফারি। তবে আক্রমণের শুরুতে বার্সেলোনা অধিনায়ক অফ সাইডে থাকায় সিদ্ধান্ত পাল্টান তিনি। বেঁচে যান সের্হিও এররেরা।

বল দখল ও আক্রমণে এগিয়ে থাকলেও সেভাবে ওসাসুনা গোলরক্ষকের পরীক্ষা নিতে পারছিল না বার্সেলোনা। ৩০তম মিনিটে মেসির দুর্দান্ত ক্রসে আসে সুযোগ। অধিনায়কের থেকে বল পেয়ে খুব কাছ থেকে বুলেট গতির শটে জাল খুঁজে নেন অরক্ষিত আলবা।

প্রতি আক্রমণ থেকে চার মিনিট পরই সমতা ফেরানোর সুযোগ পায় স্বাগতিকরা। কিন্তু টের স্টেগেন বরাবর বুলেট গতির শট নিয়ে দলকে হতাশ করেন রুবেন গার্সিয়া।

৩-৫-২ ফর্মেশনে ম্যাচ শুরু করা বার্সেলোনা বিরতির পর সামুয়েল উমতিতিকে তুলে নিয়ে উসমান দেম্বেলেকে নামায়। ৪-৩-৩ ফর্মেশনে ফেরার পর ম্যাচে তাদের নিয়ন্ত্রণ আরও বাড়ে। জমাট হয় রক্ষণ।

৪৮তম মিনিটে ডি বক্সের বাইরে থেকে মেসির জোরালো শট ঝাঁপিয়ে ঠেকান ওসাসুনা গোলরক্ষক।
৬৭তম মিনিটে মেসির ফ্রি কিক পোস্ট ঘেঁষে বাইরে চলে যায়। তিন মিনিট পর দারুণ এক সুযোগ পান কায়েরি। কিন্তু সতীর্থের ক্রসে হেড লক্ষ্যে রাখতে পারেননি আর্জেন্টাইন এই ফরোয়ার্ড।

৭৯তম মিনিটে মেসির চমৎকার পাস থেকে আবার সুযোগ আসে আলবার সামনে। এবার পারেননি তিনি। তার শট কোনোমতে ঠেকিয়ে দেন ওসাসুনা গোলরক্ষক।

৮৩তম মিনিটে মেসির পাস থেকে বাঁ পায়ের বুলেট গতির শটে ঠিকানা খুঁজে নেন ইলাইশ। ঝাঁপিয়ে বল ছুঁয়েছিলেন গোলরক্ষক, কিন্তু জালে যাওয়া ঠেকাতে পারেননি তিনি। বার্সেলোনার হয়ে এটাই তরুণ ইলাইশের প্রথম গোল।

২৬ ম্যাচে ১৭ জয় ও পাঁচ ড্রয়ে ৫৬ পয়েন্ট নিয়ে দুই নম্বরে রয়েছে বার্সেলোনা। ২৪ ম্যাচে ৫৮ পয়েন্ট নিয়ে চূড়ায় আতলেতিকো মাদ্রিদ। এক ম্যাচ কম খেলা রিয়াল মাদ্রিদ ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে তিনে। রোববার মুখোমুখি হবে মাদ্রিদের এই দুই দল।